PNB FD Calculator- পাঞ্জাব ন্যাশনাল ব্যাঙ্কে ৫০ হাজার টাকা FD করলে ৩ বছরে কত টাকা রিটার্ন পাবেন? দেখে নিন ইনভেস্ট করার আগে

আপনার আয় করে টাকা ভবিষ্যতের জন্য সঞ্চয় করতে চাইছেন? কিন্তু কিভাবে সঞ্চয় করবেন? কোথায় বিনিয়োগ করলে ভালো টাকা রিটার্ন পাবেন? সেটার সিদ্ধান্ত নিতে পারছেন না? তাহলে আজকের এই প্রতিবেদন আপনার…

Published By: Debapriya Sarkar | Published On:

আপনার আয় করে টাকা ভবিষ্যতের জন্য সঞ্চয় করতে চাইছেন? কিন্তু কিভাবে সঞ্চয় করবেন? কোথায় বিনিয়োগ করলে ভালো টাকা রিটার্ন পাবেন? সেটার সিদ্ধান্ত নিতে পারছেন না? তাহলে আজকের এই প্রতিবেদন আপনার জন্য একেবারে উপযুক্ত। আমরা আপনাদের জানাবো এমন একটি বিনিয়োগের পরিকল্পনা যেখানে অল্প পরিমাণ টাকা বিনিয়োগ করলেও মেয়াদ শেষে আপনি বেশ মোটা অঙ্কের টাকা রিটার্ন পাবেন। তাহলে দেরি না করে আসুন জেনে নিন এই বিনিয়োগ পরিকল্পনা সম্বন্ধে সমস্ত তথ্য বিস্তারিত ভাবে।

বর্তমানে টাকা সঞ্চয়ের জন্য সাধারণত মানুষ ব্যাঙ্ক ও পোস্ট অফিসের বিভিন্ন স্কিম এবং শেয়ার বাজারে বিনিয়োগ করে থাকেন। তবে সব ধরনের স্কিম নিরাপদ নয়। তাছাড়া শেয়ার মার্কেটে বিনিয়োগে একটা রিস্ক থেকেই যায়। তাই সব দিক বিচার বিবেচনা করে এবং বিভিন্ন তথ্যসূত্র জোগাড় করে আজ আমরা আপনাদের এমন একটি ফিক্স ডিপোজিটের কথা জানাবো যেখানে আপনার অর্থ নিরাপদে বৃদ্ধি পাবে এবং এখানে বিনিয়োগের পরিমাণও অত্যন্ত কম।

আরোও পড়ুনঃ বলুন তো জামাইষষ্ঠীর আসল নাম কী? মেয়েরা তো দূর অস্ত, ফেল মেরেছে ৯৯% জামাই বাবাজি

আজি প্রতিবেদন আপনাদের জানাবো ভারতের অন্যতম সরকারি ব্যাঙ্ক পাঞ্জাব ন্যাশনাল ব্যাঙ্কের ফিক্সড ডিপোজিট স্কিমে (PNB FD Calculation) সম্বন্ধে। এই ব্যাংকের ফিক্স ডিপোজিট স্কিমে মেয়াদ অনুযায়ী কত পার্সেন্ট সুদে কত টাকা রিটার্ন পাওয়া যায় তারই হিসেব-নিকেশ বোঝাতেই আজকের আমাদের এই প্রতিবেদন। অন্যান্য সমস্ত ব্যাঙ্কিং প্রতিষ্ঠানগুলির ফিক্সড ডিপোজিট এর সাথে এই ব্যাঙ্কে ফিক্স ডিপোজিট তুলনা করার পরেই আমাদের এই প্রতিবেদন প্রস্তুত করা হয়েছে। তাই আসুন জেনে নিন পাঞ্জাব ন্যাশনাল ব্যাঙ্কের ফিক্স ডিপোজিটের কিছু সুবিধা।

PNB FD Calculation :-

মূলত পাঞ্জাব ন্যাশনাল ব্যাঙ্কের ফিক্সড ডিপোজিটের মেয়াদ ভিন্ন, যার ফলে গ্রাহকরা এই ব্যাঙ্কে ১০টিরও বেশি ফিক্সড ডিপোজিট স্কিমে অর্থ বিনিয়োগ করতে পারেন। তবে আজ এই প্রতিবেদন আমরা জানাবো ১ লক্ষ টাকার বিনিয়োগে ৩ বছর, ৫ বছর এবং ১০ বছরের মেয়াদে সুদ সমেত কত টাকা রিটার্ন পেতে পারবেন গ্রাহকরা। আসুন জেনে নিন।

• ৩ বছর মেয়াদ :-

পাঞ্জাব ন্যাশনাল ব্যাঙ্ক ফিক্সড ডিপোজিট (FD) স্কিমে ২ থেকে ৩ বছরের মেয়াদে সাধারণত ৭ শতাংশ সুদ দিয়ে থাকে গ্রাহকদের। তবে প্রবীণ গ্রাহকদের ক্ষেত্রে এই সুদের পরিমাণ হয় ৭.৮০ শতাংশ। কোনো সাধারণ গ্রাহক যদি তিন বছরের মেয়াদে FD স্কিমে ১ লক্ষ টাকা বিনিয়োগ করেন সেক্ষেত্রে তিনি সুদ পাবেন ২৩,১৪৪ টাকা। অর্থাৎ সুদ সমেত তিনি মোট রিটার্ন পাবেন ১,২৩,১৪৪ টাকা। অন্যদিকে যদি কোন প্রবীণ গ্রাহক পাঞ্জাব ন্যাশনাল ব্যাঙ্কের FD তে এক লক্ষ টাকা জমা করেন সে ক্ষেত্রে ওই ব্যক্তি ৭.৮০ শতাংশ সুদ অর্থাৎ ২৬,০৮০ টাকা পাবেন। এক্ষেত্রে সুদ সমেত তিনি মোট ১,২৬,০৮০ টাকা রিটার্ন পাবেন।

• ৫ বছর মেয়াদ :-

পাঞ্জাব ন্যাশনাল ব্যাঙ্ক-এর FD স্কিমে ৫ বছরের জন্য ১ লক্ষ টাকা বিনিয়োগ করলে সাধারণ গ্রাহক ৬.৫০ শতাংশ সুদের হিসাবে ৩৮,০৪২ টাকা সুদ পাবেন। সেক্ষেত্রে সেই ব্যক্তি সুদ সমেত মোট ১,৩৮,০৪২ টাকা পাবেন। অপরদিকে প্রবীণ নাগরিকরা যদি ৫ বছরের মেয়াদে ১ লক্ষ টাকা বিনিয়োগ করেন সে ক্ষেত্রে তিনি মোট টাকার উপর সুদ পাবেন ৭.৩০ শতাংশ হারে। এই হিসেবে ১ লক্ষের উপর সুদের পরিমাণ হবে ৪৩,৫৭৮ টাকা। অর্থাৎ রিটার্নে ওই ব্যক্তি সুদ সমেত ১,৪৩,৫৭৮ টাকা পাবেন।

আরোও পড়ুনঃ এইট পাশে একাধিক সরকারি পদে কর্মী নিয়োগ, কিভাবে আবেদন করবেন দেখে নিন

• ১০ বছর মেয়াদ :-

পাঞ্জাব ন্যাশনাল ব্যাঙ্ক-এর FD স্কিমে ১০ বছরের জন্য কোনো গ্রাহক যদি ১ লক্ষ টাকা বিনিয়োগ করেন তবে ব্যাঙ্ক তাকে ৬.৫০ শতাংশ হারে ১০ বছর পর ৯০,৫৫৬ টাকা সুদ দেবে। ফিক্স ডিপোজিট ম্যাচুরিটি হওয়ার পর অর্থাৎ ১০ বছর পর ওই ব্যক্তি সুদ সমেত ১,৯০,৫৫৬ টাকা রিটার্ন পাবেন। অন্যদিকে কোন প্রবীণ নাগরিক যদি ১ লক্ষ টাকা ১০ বছরের জন্য ফিক্স ডিপোজিট করে থাকেন তবে সেক্ষেত্রে তার সুদের পরিমাণ হবে ৭.৩০ শতাংশ হারে ১,০৬,১৪৭ টাকা। ১০ বছর পর ওই ব্যক্তি সুদ সমেত মোট ২,০৬,১৪৭টাকা রিটার্ন পাবেন। 

 

 

About Author
Debapriya Sarkar

দেবপ্রিয়া বিগত বেশ কিছু বছর ধরে সাংবাদিকতার সাথে যুক্ত রয়েছেন। ডিজিটাল মিডিয়ার হাত ধরেই সাংবাদিকতায় তার হ...

আরও পড়ুন