Train Rule 2024 : ট্রেনের টিকিট হারিয়ে গেলে তাড়াতাড়ি করুন এই কাজ, নাহলে দিতে হবে মোটা টাকা জরিমানা

Sangbad Safar : আমাদের দেশটাতে ভারতবর্ষের সবথেকে বেশি উন্নত তার পরিবহন ব্যবস্থার জন্য। আর এই ব্যবস্থার মধ্যে সর্বপ্রথম রয়েছে এর ব্যবস্থা। প্রতিদিন দেশের কোটি কোটি মানুষ তার নির্দিষ্ট গন্তব্য স্থলে…

Published By: Debapriya Sarkar | Published On:

Sangbad Safar : আমাদের দেশটাতে ভারতবর্ষের সবথেকে বেশি উন্নত তার পরিবহন ব্যবস্থার জন্য। আর এই ব্যবস্থার মধ্যে সর্বপ্রথম রয়েছে এর ব্যবস্থা। প্রতিদিন দেশের কোটি কোটি মানুষ তার নির্দিষ্ট গন্তব্য স্থলে খুব কম সময়ে পৌঁছে যায় এই রেলের মাধ্যমে। ভারতীয় রেল ব্যবস্থাকে দেশের মেরুদন্ড বলা হয়ে থাকে। গোটা দেশজুড়ে প্রায় ১৩ হাজারের প্রতিদিন চলাচল করে সাধারণ মানুষের পরিষেবার জন্য।

গত ১৬০ বছর ধরে ভারতের রেল পরিষেবা জারি রয়েছে। ১৮৫৩ ভারতের সর্বপ্রথম রেল চলাচল শুরু হয়। সাহেব, সুলতান এবং সিন্ধু নামক লোকোমোটিভ চালিয়েছিল সেই রেলটি। বর্তমানে ভারতীয় রেল নেটওয়ার্ক ৬৮ হাজার কিলোমিটারেরও বেশি। ৮ হাজারের বেশি রেলস্টেশন রয়েছে এবং এর সংখ্যা ক্রমাগত বৃদ্ধি পেয়ে চলেছে।

আরোও পড়ুনঃ EPFO-র নতুন নিয়মেই হলো বাজিমাত, জরুরি অবস্থায় টাকার চিন্তা করতে হবে না চাকুরীজীবীদের!

প্রতিদিন কোটি কোটি মানুষ ট্রেনে যাতায়াত করলেও রেলে বিশেষ কিছু নিয়ম সম্বন্ধে অধিকাংশ যাত্রীই অবগত নয়। আপনি নিশ্চয়ই কোনো না কোনো সময় ট্রেনে ভ্রমণ করেছেন বা হয়তো রোজই করেন। আপনি যদি ট্রেনের নিত্যদিনের যাত্রী হয়ে থাকেন তবে আজকের এই প্রতিবেদন আপনার জন্য একেবারে উপযুক্ত। আজ এই প্রতিবেদনে আমরা এমন এক দুর্দান্ত তথ্য আপনাদের জানাবো যা ট্রেনে যাতায়াতের প্রধান দুশ্চিন্তা থেকে আপনাদের সর্বদা মুক্ত রাখবে।

ট্রেনে যাতায়াত করার জন্য টিকিট কাটা অত্যন্ত জরুরী। কিন্তু প্রচুর মানুষ রয়েছেন যারা টিকিট ছাড়াই ট্রেনে যাতায়াত করে। আবার অনেকে টিকিট কেটেও অন্যমনস্কতার কারণে হারিয়ে ফেলেন সেই টিকিট। আপনার সাথে যদি কখনো এমন কিছু ঘটে অর্থাৎ ধরুন আপনি কোথাও ভ্রমনে যাচ্ছেন আর যাওয়ার পথেই কোনো ভাবে আপনি আপনার বুকিং টিকিট হারিয়ে ফেলেছেন। এই সময় অনেকেই কি করবেন তার উপায় খুঁজে পান না। আজ সেই উপায় জানাতেই আমাদের এই প্রতিবেদন। ট্রেনের টিকিট হারিয়ে গেলে কি করা উচিত তা জানতে শেষ অব্দি চোখ রাখুন আমাদের এই প্রতিবেদনে।

আপনি যদি কখনো ট্রেনের টিকেট হারিয়ে ফেলেন তবে সেক্ষেত্রে সবার প্রথমে আপনাকে ট্রেনের টিটিইকে পুরো ব্যাপারটা জানাতে হবে। তারপরে টিটিই আপনাকে একটি ডুপ্লিকেট টিকিট ইস্যু করবে। এই টিকিটটি দেখতে আসল টিকিটের মতোই, তবে আসল টিকিটের থেকে আলাদা করা সহজ। তবে এক্ষেত্রে ডুপ্লিকেট টিকিটের জন্য কিছু টাকা চার্জ করা হবে।

আরোও পড়ুনঃ BJP ক্ষমতায় এলে ডাইরেক্ট এনকাউন্টার! ভোট শেষ হতেই যোগী দাওয়াইয়ের হুঁশিয়ারি সুকান্তর

কত টাকা দিতে হবে ডুপ্লিকেট টিকিটের জন্য?

আপনাকে টিটিই যে ডুপ্লিকেট টিকিটটি প্রদান করবে সেটির জন্য আপনাকে একটি নির্দিষ্ট পরিমাণ টাকা দিতে হবে টিটিই কে। আপনি যদি স্লিপার ক্লাস বা সেকেন্ড ক্লাসে ভ্রমণ করেন সেক্ষেত্রে আপনি ৫০ টাকা দিতে হবে একটি ডুপ্লিকেট টিকিটের জন্য। তবে আপনি যদি স্লিপার বা সেকেন্ড ক্লাস ছাড়া অন্য কোন ক্লাসে যাতায়াত করেন, সেক্ষেত্রে আপনাকে ডুপ্লিকেট টিকেটের জন্য ১০০ টাকা দিতে হবে। তবে ট্রেনে যাতায়াতের সময় কোন কারণ বসাতে যদি আপনার টিকিটটা ছিড়ে যায় সেক্ষেত্রে আপনি টিকিটের দামের ২৫ শতাংশ দিয়ে ডুপ্লিকেট টিকিট পেতে পারবেন।

বিঃদ্র : আপনার ট্রেনের টিকিট যদি কনফার্ম থাকে তবেই আপনি ডুপ্লিকেট টিকিট পেতে পারবেন। ওয়েটিং টিকিটে ডুপ্লিকেট টিকিটের প্রয়োজন হয় না। কারণ কনফার্ম টিকিটে আপনি ডুপ্লিকেট টিকিট দিয়ে সিট পাবেন, কিন্তু ওয়েটিং টিকিট থাকলে আপনি শুধু ট্রেনের বগিতে যাতায়াত করতে পারবেন, কোনরকম সিট পাবেন না।

 

 

 

 

About Author
Debapriya Sarkar

দেবপ্রিয়া বিগত বেশ কিছু বছর ধরে সাংবাদিকতার সাথে যুক্ত রয়েছেন। ডিজিটাল মিডিয়ার হাত ধরেই সাংবাদিকতায় তার হ...

আরও পড়ুন